সর্বশেষ

যে মুখোশে মিশে আছে ৯০০০ বছরের প্রাচীন ইতিহাস

অনলাইন ডেস্ক নিউজ | আপডেট: ০২:১৭, ডিসেম্বর ০৫ , ২০১৮

মাঠের প্রান্তে পড়ে রয়েছে পাথরের মুখোশ। পাথরের গায়ে ছিদ্র করে বানানো চোখ। তার নীচে সুচারু ভাবে ফুটিয়ে তোলা নাক, ঠোঁট। অনেকের এটা দেখে ১৯৭০ সালের বিখ্যাত হলিউড ছবি ‘ফ্রাইডে দ্য থার্টিন্থ’র সেই ভূতুড়ে মুখোশের কথা মনে পড়ে যাবে। কিন্তু এই মুখোশ কোন নিছক হলিউডি চমকের প্রতীক নয়। কারণ এই মুখোশের সঙ্গে মিশে রয়েছে ৯ হাজার বছরের ইতিহাস। জানা যাচ্ছে, ফিলিস্তিনের শহর হেব্রনের এক কৃষিজমিতে পাওয়া গেছে ওই রহস্যময় মুখোশ। ওই জমি দিয়ে হাঁটার সময় আচমকাই সেটা খুঁজে পান এক ব্যক্তি। তিনি সেই মুখোশটি তুলে দেন আইএএ'র (ইসরায়েল অ্যান্টিকুইটি অথরিটি) হাতে। সংস্থার প্রত্নতত্ত্ববিদ রনিত লুপু জানিয়েছেন, পথে চলার সময়ে আচমকাই ওই ব্যক্তি মুখোশটি দেখতে পান। এমনিতে ওই এলাকার জমিতে বহু পুরাতাত্ত্বিক নিদর্শনের দেখা মেলে। তাই চাষের সময়ে অনেক সময়ই পাথুরে বস্তুর সন্ধান মেলে। এই মুখোশও সেভাবেই উঠে এসেছিল মাটির উপরে। আইএএ'র অনুমান, ওই জমিতে বহু নিদর্শন খুঁজে পাওয়া যেতে পারে। প্রায় ৯ হাজার বছর আগে তৈরি হওয়া মুখোশটিকে দেখে মুগ্ধ রনিত। তিনি জানিয়েছেন, পাথরের মুখোশটিতে গালের নরম ডৌল যেভাবে ফুটেছে তা দেখে তিনি অত্যন্ত মুগ্ধ। গত ২৯ নভেম্বর ইসরায়েল প্রিহিস্টোরিক সোসাইটির বার্ষিক সম্মেলনে তিনি প্রথম মুখোশটি জনসমক্ষে আনেন। ছোট্ট একটি মুখোশের গায়ে লেগে থাকা দীর্ঘ ৯ হাজার বছর আগের স্পর্শ দেখে হতবাক হয়ে যায় উপস্থিত সকলে।

পাঠকের মন্তব্য
লগইন করুন
লগইন মনে রাখুন